Thursday, July 7, 2022
Homeআন্তর্জাতিকসুইস ব্যাংকে ভারতীয়দের গচ্ছিত টাকার পরিমাণ ১৪ বছরের রেকর্ড ভেঙে দিল

সুইস ব্যাংকে ভারতীয়দের গচ্ছিত টাকার পরিমাণ ১৪ বছরের রেকর্ড ভেঙে দিল

২০১৪ সালে কেন্দ্রে ক্ষমতায় আসার আগে কালো টাকার বিরুদ্ধে কার্যত যুদ্ধ ঘোষণা করেছিলেন নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। দাবি করেছিলেন বিজেপি ক্ষমতায় এলে বিদেশে গচ্ছিত ভারতীয়দের কালো টাকা ফিরিয়ে আনা হবে। কিন্তু বাস্তবে দেখা যাচ্ছে, বিদেশ থেকে টাকা ফেরা তো দূরের কথা, সুইস ব্যাংকে ভারতীয়দের জমার পরিমাণ দিন দিন বাড়ছে। মাত্র এক বছরে বিদেশের এই ব্যাংকে ভারতীয়দের গচ্ছিত টাকার অঙ্কটা প্রায় দেড়গুণ হয়ে গেল। বার্ষিক হিসেব বলছে ২০২১ সালে শুধু ভারতীয়দের জমা আমানতের পরিমাণ প্রায় ৩০ হাজার ৫০০ কোটি টাকা। যা কিনা গত ১৪ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ।

২০১৮ সালের শেষে সুইস ব্যাংকে ভারতীয়দের গচ্ছিত টাকার অঙ্ক ছিল ১২,৬১৫ কোটি টাকা। যা একধাক্কায় অনেকটা কমে যায় ২০১৯ সালে। ২০১৯ সালের শেষে সুইস ব্যাংকে (Swiss Bank) ভারতীয়দের আমানতের পরিমাণ ছিল ৮৯৯ মিলিয়ন সুইস ফ্রাঁ। ভারতীয় মুদ্রায় ৬ হাজার ৬২৫ কোটি টাকা। সেখান থেকে ২০২০ সালে একলাফে এই আমানতের পরিমাণ বেড়ে দাঁড়ায় ২০ হাজার ৭০০ কোটি টাকা। ২০২১ সাল অর্থাৎ করোনার বছর সেই টাকার অঙ্কটা রেকর্ড প্রায় ৫০ শতাংশ বেড়েছে। আপাতত অঙ্কটা ৩০ হাজার ৫০০ কোটি টাকা।

প্রসঙ্গত, এই যে জমার হিসেব বলা হচ্ছে এটা সরকারি হিসেবে। এর বাইরেও ডামি অ্যাকাউন্ট বা ডামি সংস্থার মাধ্যমে অনৈতিকভাবে বহু ভারতীয় সুইস ব্যাংকে টাকা রাখেন। আবার এদের বাইরে প্রবাসী ভারতীয়রা বৈধ ভাবেও সেখানে টাকা রাখেন। সুতরাং এই হিসেব দেখে কালো টাকার (Black Money) পরিমাণ জানা অসম্ভব। তবে, সুইস ব্যাংকে কোন কোন ভারতীয়দের অ্যাকাউন্ট আছে, কারা কারা কত অর্থ জমা রেখেছেন,সে হিসেব কেন্দ্রকে অনেক আগেই তুলে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

(তথ্য সূত্র সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল)

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

More News

Recent Comments