ভোটের দিন সকালে গুলিবিদ্ধ হন দিনহাটা ১ নং ব্লকের ভাগ্নি পার্ট ১ এলাকার বিজেপির দুই কর্মী তাদের মধ্যে একজন মহিলা এবং একজন পুরুষ গুলিবিদ্ধ হয়েছিলেন বিজেপি কর্মী চিরঞ্জিত কার্জী এবং রাধিকা বর্মন। দুজনকেই তড়িঘড়ি দিনহাটা মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে এলে তাদের অবস্থা আশঙ্কা জনক হওয়ায় দুজনকেই কোচবিহারের রেফার করা হয়। কিন্তু মাত্র কয়েক ঘন্টার পর মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে চিরঞ্জিত কার্জী । উল্লেখ্য আজ ভোটের দিন সকালে কোচবিহারের তুফানগঞ্জ এর ফলিমারীতে গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় বিজেপির পোলিং এজেন্ট এর। এরপর জেলা জুড়ে বিভিন্ন ঘটনার শিরোনামে উঠে আসে দিনহাটা, এখনো পর্যন্ত দিনহাটায় মোট চারজন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। তাদের মধ্যে মৃত্যু হল একজনের। অন্যদিকে তৃণমূল কর্মী এবং তৃণমূলের এক বুথ সভাপতিকেও মারধর করা হয় বলে অভিযোগ সেক্ষেত্রে অভিযোগ তীর ছিল বিজেপির দিকে। এক সিপিআইএম কর্মী সমর্থক কেউ মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। ভোটের দিন একের পর এক কান্ডে উত্তপ্ত হয়ে উঠছে দিনহাটা। এখনো পর্যন্ত কোচবিহার জেলায় দুজনের মৃত্যুর খবরে অনেকটাই আতঙ্কিত সাধারণ মানুষ।

বিজেপি নেতা জীবেশ বিশ্বাস জানান, সকাল থেকেই বিভিন্ন বুথে ছাপ্পা ভোট শুরু করে তৃণমূল কংগ্রেসের দুষ্কৃতীরা বাধা দিতে গেলে বিভিন্ন জায়গায় বিজেপি কর্মী প্রার্থী পোলিং এজেন্টদের ওপর হামলা হয়। ভাগ্নি পার্ট ১ এলাকায় পলিবিদ্ধ হয়েছিল দুজন বিজেপি কর্মী তাদের মধ্যে চিরঞ্জিতের মৃত্যু হয়েছে কোচবিহারে। তৃণমূল এখনো ছাপ্পা করে চলছে।

অন্যদিকে বিজেপির এই অভিযোগ সম্পূর্ণ অস্বীকার করেছে তৃণমূল। উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী উদয়ন গুহ অবশ্য মৃত যুবককে বিজেপির কর্মী বলতে নারাজ। তিনি বলেন কোন কিছু হলেই রাজনৈতিক রং লাগানোর চেষ্টা হয়। টিভির খবর দেখলে দেখা যাবে অর্ধেক আমাদেরই কর্মী মারা গেছেন। আমাদের কর্মীদের উপরেও হামলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *